করোনা মহামারি স্বাস্থ্য ব্যবস্থার উন্নতিতে বড় ভূমিকা রেখেছে: সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী

করোনা মহামারি স্বাস্থ্য ব্যবস্থার উন্নতিতে বড় ভূমিকা রেখেছে বলে মন্তব্য করেছেন সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী আ ফ ম রুহুল হক এমপি।

তিনি বলেছেন, সাধারণ মানুষের ধারণা সরকারি হাসপাতালে চিকিৎসা পাওয়া যায় না। কিন্তু সেটি ভুল। করোনা মহামারি স্বাস্থ্য ব্যবস্থার উন্নতিতে বড় ভূমিকা রেখেছে। অক্সিজেনসহ প্রয়োজনীয় অনেক কিছু হয়েছে যেটা অন্য সময়ে হয়তো এত দ্রুত হতো না। এই সময়ে আমাদের সক্ষমতা জানান দেওয়া হয়েছে যে একদিনে এক কোটি ২০ লাখ টিকা আমরা দিতে পারি।

রাজধানীর গুলশান শুটিং ক্লাবে বিএসএফ কনভেনশন হলে শুক্রবার (১ জুলাই) ‘হেলথ বন্ধু’র ডিজিটাল হেলথকেয়ার ইকোসিস্টেমের উদ্বোধনকালে তিনি এসব কথা বলেন।

বিজ্ঞাপন

রুহুল হক বলেন, প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর চিকিৎসার জন্য স্থানীয় হাসপাতালে চিকিৎসা ব্যবস্থা ভালো। কিন্তু বেসরকারি হাসপাতালের ন্যায় ব্যবস্থাপনায় কিছুটা পিছিয়ে। হঠাৎ অসুস্থ হলে রোগীকে দ্রুত সময়ে কোথায় নেওয়া যেতে পারে সেটি ডিজিটাল মাধ্যমে পাওয়া যেতে পারে। নতুন ডিজিটাল হেলথকেয়ার সিস্টেম ‘হেলথ বন্ধু’ সেই ভূমিকা রাখবে বলে আশা করছি।

তিনি আরও বলেন, প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর মাঝে সব সময়ই সেবা পৌঁছানো কঠিন। তাই ডিজিটাল মাধ্যমকে কাজে লাগিয়ে এ সেবা নিশ্চিত করতে হবে। ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়তে হলে অন্যান্য সব কিছুর মতো স্বাস্থ্য ব্যবস্থাও পুরোপুরি ডিজিটালে রূপান্তর করতে হবে।

অনুষ্ঠানে মেডিসিন বিশেষজ্ঞ ও প্রধামন্ত্রীর ব্যক্তিগত চিকিৎসক ইমেরিটাস অধ্যাপক এ বি এম আব্দুল্লাহ বলেন, কোভিড নিয়ন্ত্রণে বিশ্বের বড় বড় দেশের তুলনায় অনেক ভালো অবস্থানে বাংলাদেশ। যুক্তরাষ্ট্র, ব্রাজিল, ভারতে লাখ লাখ মানুষ করোনায় মারা গেছে। সেসব দেশে কোটি কোটি মানুষ আক্রান্ত। সেখানে আমাদের অনেক কম। পৃথিবীর ১২১টি দেশের মধ্যে আমরা পঞ্চম। আরও এগিয়ে যেতে হবে।

বিজ্ঞাপন

শীর্ষ সংবাদ:
স্মার্ট গ্র্যাজুয়েট তৈরির পাশাপাশি স্মার্ট খামারি গড়ে তুলতে হবে: বাকৃবি উপাচার্য সিলেট ও নাটোরের দুই ছাত্রীর বিয়ে নিয়ে তোলপাড় ভূরুঙ্গামারীতে দাঁড়িয়ে থাকা ট্রাকের সাথে নৈশ কোচের ধাক্কায় প্রাণ গেল হেলপারের শরণখোলায় ৭ম শ্রেণীর ছাত্রী ধর্ষনের শিকার এবার পালিয়ে বাংলাদেশে এসেছে আরকান আর্মির ৫ সদস্য লালমোহনে আমের মুকুলের ঘ্রাণে ভরে উঠেছে বাগানগুলো অসামাজিক কার্যক্রম চালানোর দায়ে ইউপি চেয়ারম্যানের বোনসহ আটক ৪ কিশোরগঞ্জে বাকৃবির কৃষি প্রকৌশলীদের সম্প্রসারণ মাঠ সফর গাজীপুরে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদের কয়েক ঘন্টা পরই ফের দখল নরসিংদীতে বাস-কাভার্ডভ্যানের সংঘর্ষ, ২ চালক নিহত ভারতীয় যুবক কারাভোগ শেষে দেশে ফিরলেন গ্রাম বাংলার ঐতিহ্য ধরে রাখতে পালকিতে বর-কনে, গরুর গাড়িতে বরযাত্রী রুদ্ধদ্বার বৈঠক শেষে আমীর খসরু বললেন ‘কিছুই বলার নেই’ বড় দুঃসংবাদ পেল ইমরান খানের পিটিআই গাজীপুরে ভবনের ছাদ থেকে পড়ে শিক্ষার্থীর মৃত্যু ৩৮ বছর পর বিশ্ব কোরআন প্রতিযোগিতায় বাংলাদেশের রেকর্ড ১৩ বছর পালিয়ে থেকেও শেষ রক্ষা হলো না, র‍্যাবের হাতে ধরা তানোরে আলুর দাম নিয়ে কৃষকদের দুশ্চিন্তা মহাসড়কে অবৈধ দোকান উচ্ছেদ অভিযান টেকনাফে হোয়াইক্যংয়ে এক দিন মজুরকে পিঠিয়ে হত্যা